বাংলায় সর্বপ্রথম, সর্ববৃহৎ ও সর্বাধিক জনপ্রিয় প্রশ্ন-উত্তরভিত্তিক ও সমস্যা সমাধানের উন্মুক্ত কমিউনিটি "হেল্পফুল হাব" এ আপনাকে স্বাগত, এখানে আপনি যে কোনো প্রশ্ন করে উত্তর নিতে পারবেন একদম বিনামূল্যে এবং কোনো প্রশ্নের সঠিক উত্তর জানা থাকলে তা প্রদান করতে পারবেন। রেজিস্ট্রেশান না করেই অংশগ্রহণ করতে পারবেন তবে, সর্বোচ্চ সুবিধার জন্য বিনামূল্যে রেজিস্ট্রেশান করুন!

> বাংলা ভাষায় সর্বপ্রথম সম্পূর্ণ প্রশ্ন-উত্তরভিত্তিক এবং সমস্যা সমাধানের উন্মুক্ত কমিউনিটি "হেল্পফুল হাব" এ আপনাকে স্বাগত, এখানে আপনি যে কোনো প্রশ্ন করে উত্তর নিতে পারবেন এবং কোনো প্রশ্নের সঠিক উত্তর জানা থাকলে তা প্রদান করতে পারবেন।

Welcome to Helpful Hub, where you can ask questions and receive answers from other members of the community.

14.7k টি প্রশ্ন

16.3k টি উত্তর

5.7k টি মন্তব্য

6k জন নিবন্ধিত

0 টি ভোট
263 বার প্রদর্শিত
 ইটিউবের মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্ক কি? ইউটিউব এর মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্ক কিভাবে কাজ করে?এই কোম্পানি বা সিস্টেম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চাই। দয়া করে হেল্পফুল হাব এর সদস্যরা আমাকে জানতে সাহায্য করুন।
Multi-Channel Networks (MCNs)
"কম্পিউটার ও ইন্টারনেট" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন অজ্ঞাত সদস্য

1 উত্তর

+1 টি ভোট
 
নির্বাচিত

এটা হলো অ্যাডসেন্স এর বিজ্ঞাপন বসানোর জন্যে একটা নেটওয়ার্ক এর অধিনে আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি দিয়ে দেওয়া। চ্যানেল আপনারই থাকবে কিন্তু আপনার চ্যানেলের অ্যাডসেন্স এর বিজ্ঞাপনগুলো অন্যের। যা ইনকাম হবে তা আপনি পাবেন না। পাবে মূলত ঐ নেটওয়ার্ক। এবং তারা আপনাকে একটা নির্দিষ্ট অংশ দেবে। এমনো হতে পারে তারা আপনার ইনকামের ৭০% দিলো আর ৩০% নিয়ে নিলো।

এতে সুবিধা হচ্ছে, সাধারণত ইউটিউবের জন্য সাধারণত অ্যাডসেন্স ৬০% রেভিনিউ শেয়ার করে। আর এই ক্ষেত্রে করবে ৭০%(যদি সেই ৭০% থেকে আবার দুই পক্ষের মধ্যে ভাগাভাগি হবে যেমনটি আগে বলেছিলাম যে, ৭০% রেভিনিউ এ যদি ১০০ ডলার পান তাহলে আপনি ৭০ ডলার পাবেন আর ঐ নেটওয়ার্কটি ৩০ ডলার নিয়ে নেবে।

বলতে গেলে ঐ মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্কের একটা চুক্তি থাকবে ইউটিউবের সাথে। তাই তারা রেভিনিউ শেয়ার কিছুটা বেশি পেয়ে থাকে। সাধারণত অ্যাডসেন্স থেকে ১০০ ডলারের নিচে পেমেন্ট পাবেন না। তবে মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্ক এর অধিনে কাজ করলে তারা আপনাকে ৫০ ডলার হলেও দিতে পারে আবার ৫ ডলার হলেও দিতে পারে। কেউ কেউ আবার ১ ডলার হলেও পে করে। তবে বাংলাদেশে হলে একটু সমস্যা হতে পারে। অনেকেই পেপ্যাল বা অন্য কিছুতে পে করে। আর অ্যাডসেন্স থেকে সরাসরি ১০০ ডলার পেলে সেটা হয়তো আপনার ব্যাংক একাউন্টেই চলে আসতো।

স্বাভাবিকভাবে আপনার ভিডিও কেউ কপি করলে তা গুগল ধরে না। সেই ক্ষেত্রে আপনি যদি রিপোর্ট করেন তাহলে গুগল ব্যবস্থা নিয়ে থাকে। কিন্তু এরকম আপনার চোখ এড়িয়ে যদি আপনার ভিডিও অন্যরা কপি করে তাহলে হয়তো আপনি বুঝতেও পারবেন না। এই ক্ষেত্রে গুগল এর কন্টেন্ট আইডি বলে একটা জিনিস আছে যা স্বাভাবিকভাবে আপনার ভিডিও কেউ কপি করলেই সাথে সাথে গুগল ধরে দিতে পারবে। এই সুবিধাটি ভেরিফাইড ইউটিউব চ্যানেল ছাড়া পায় না। বা পেতে হলে আরো কিছু রিকোয়েরমেন্ট লাগে। সেই দিক দিয়ে মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্কের অধিনে কাজ করলে এই সুবিধাটা আপনি পাবেন।

পরিশেষে বলবো, আপনার যদি বড় কোনো ইউটিউব চ্যানেল থাকে যেখানে আপনার নিজের তৈরি ভিডিও এবং অনেক ভিউ হয় এরকম কিছু হয় তাহলে মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্কের অধিনে কাজ করতে পারেন। যেমন আপনি হয়তো অনেক বড় সেলিব্রেটি আপনার মিউজিক ভিডিও বা গান বের হচ্ছে যা অনেক ভিউ হয়।

আর ছোট খাটো যে সব ইউটিউবার রয়েছেন বা যারা ইউটিউব থেকে টুক টাক ইনকাম করছেন তারা মাল্টি চ্যানেল নেটওয়ার্ক অধিনে না গেলেও চলবে। স্বাভাবিক নিয়মেই অ্যাডসেন্স ব্যবহার করুন।

উত্তর প্রদান করেছেন অজ্ঞাত সদস্য
নির্বাচিত করেছেন

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

+1 টি ভোট
4 টি উত্তর
18 সেপ্টেম্বর 2012 "কম্পিউটার ও ইন্টারনেট" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন turan New User (2 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
3 টি উত্তর
0 টি ভোট
1 উত্তর
+1 টি ভোট
1 উত্তর
0 টি ভোট
1 উত্তর
0 টি ভোট
1 উত্তর
0 টি ভোট
1 উত্তর
11 মার্চ 2013 "ফোন ও মোবাইল" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন atikraz Junior User (54 পয়েন্ট)

 

(হেল্পফুল হাব এ রয়েছে এক বিশাল প্রশ্নোত্তর ভান্ডার। তাই নতুন প্রশ্ন করার পূর্বে একটু সার্চ করে খুঁজে দেখুন নিচের বক্স থেকে)

(হেল্পফুল হাব সকলের জন্য উন্মুক্ত তাই এখানে প্রকাশিত প্রশ্নোত্তর, মন্তব্য, ছবি, অডিও, ভিডিও বা যাবতীয় কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায় শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারীর)

...